fbpx
যশোর

যশোরে জমি নিয়ে বিরোধের জের ধরে গাছে বেঁধে গৃহবধূকে নির্যাতন

সঞ্জয় কুমার, দক্ষিণ বঙ্গ ডেক্সঃ যশোরে জমি নিয়ে বিরোধের জের ধরে গাছে বেঁধে গৃহবধূকে নির্যাতন।

জমি নিয়ে বিরোধের জের ধরে যশোরে এক গৃহবধূকে গাছে বেঁধে নির্যাতন করা হয়েছে।

যশোর সদর উপজেলার মালঞ্চি গ্রামে শনিবার দুপুরে  এ ঘটনা ঘটেছে।

ওই গ্রামের নওয়াব আলীর স্ত্রী ভুক্তভোগী গৃহবধূ কাজল রেখা।

যশোর জেনারেল হাসপাতালে স্বজনরা তাকে  ভর্তি করেছেন।

আহত হয়েছেনঃ- নির্যাতিত গৃহবধূর ছেলে রয়েল হোসেন ও একই গ্রামের পাচু মিয়ার ছেলে আজগর আলী ও আক্তার হোসেনের ছেলে রিপন হোসেন।

নির্যাতিত গৃহবধূ কাজল রেখার প্রথম স্বামী রেজাউল ইসলাম নয় মাস আগে মারা যান।

প্রতিবেশী নওয়াব আলীকে বিয়ে করেন। কাজল রেখাকে প্রথম স্বামী ৪ শতক জমি লিখে দিয়েছিলেন।

স্বামীকে নিয়ে দ্বিতীয় বিয়ের পর  ওই জমিতেই বসবাস করছেন।

রেজাউলের চাচাতো ভাই আজগর হোসেন ও রিপন হোসেনের ওই জমির ওপর লোভ ছিল।

জমি থেকে কাজল রেখাদের বিতাড়িত করতে নানা ফন্দি আঁটছিল রেজাউলের চাচাতো ভাই আজগর হোসেন ও রিপন হোসেন।

আরো পড়ুন-  আমার মৃত্যু যদি গতির কারণে হয়ে থাকে, কেঁদো না কেউ কারণ আমি হাসিমুখেই মরব
আরো পড়ুন- চিলমারীতে ধর্মান্তরিত হয়ে প্রেম করে বিয়ে, অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রীকে রেখে পালাল স্বামী

সালিশ বৈঠক বসার সিদ্ধান্ত হলে আজগর ও রিপনসহ ৮-১০ জন কাজল রেখাকে মারতে আসে।

ওই গ্রামের মাতব্বর শিমুল একপর্যায়ে  কাজল রেখাকে গাছে বাঁধতে নির্দেশ দেন।

গাছে বেঁধে পরে তাকে  মারধর করে মাথার চুল কেটে, মুখে চুনকালি মাখিয়ে দেওয়া হয়।

রেখাকে বাঁচাতে দ্বিতীয় স্বামী নওয়াব আলীর ছেলে রয়েল এগিয়ে গেলে রিপন ও আজগররা তাকেও মারধর করে।

ফেসবুকে সর্বশেষ নিউজ পেতে এড হোন আমাদের ফেসবুক গ্রুপে দক্ষিণবঙ্গ

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button